সন্ধ্যা ৬:২৩, ৭ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ







তুরস্কে ৬.৭ মাত্রার ভূমিকম্পে ১৮ জন নিহত

পানকৌড়ি নিউজ: তুরস্কে ছয় দশমিক সাত মাত্রার ভূমিকম্পে নিহত হয়েছে অন্তত ১৮জন। আহত হয়েছে পাঁচ শতাধিক। স্থানীয় সময় শুক্রবার রাত ৯টার দিকে পূর্বাঞ্চলীয় ইলাজিগ প্রদেশে ভূমিকম্পটি আঘাত হানে।

ভূমিকম্পটির আঘাতে কয়েকটি ভবন ধসে পড়লে এ হতাহত হয়। আশঙ্কা করা হচ্ছে এখনও ধ্বংসস্তুপের নিচে আটকা পড়ে আছে অন্তত ৩০জন। তাদের উদ্ধারে অভিযান চলছে। ইলাজিগ প্রদেশে আহত হয়েছেন ৪০৫ জন। মালাতিয়া প্রদেশে আহত হয়েছেন আরও ১৪৮ জন।

তুরস্কের দুর্যোগ ও জরুরি ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ভূমিকম্পটির উৎপত্তিস্থল ছিল ভূপৃষ্ঠের ৬ দশমিক ৭ কিলোমিটার গভীরে। ইলাজিগ প্রদেশ ছাড়াও মালাতিয়া প্রদেশ, দক্ষিণাঞ্চলীয় আদানা ও উত্তরাঞ্চলীয় সামসুন এলাকাতেও কম্পন অনুভূত হয়েছে। ভূমিকম্পের পর দফায় দফায় আফটার শক অনুভূত হয়। রিখটার স্কেলে এগুলোর মাত্রা ছিল ৫ দশমিক ৫ থেকে ৩ দশমিক ৩ পর্যন্ত।

আরব ও ইউরেশীয় প্লেটের ওপর অবস্থিত তুরস্ককে ভূমিকম্পপ্রবণ দেশ হিসেবে বিবেচনা করা হয়। ১৯৯৯ সালের ১৭ আগস্ট ৩৭ সেকেন্ডের এক ভূমিকম্পে দেশটিতে ১৭ হাজারেরও বেশি মানুষের মৃত্যু হয়। আহত হন আরও ৪৩ হাজারেরও বেশি মানুষ। তুরস্কের উত্তরপশ্চিমাঞ্চলীয় মারমারা অঞ্চলে কম্পনটি আঘাত হেনেছিল। এর তিন মাসের মাথায় ১৯৯৯ সালের ১২ নভেম্বর ডিজসে প্রদেশে ৭ মাত্রার আরেকটি কম্পন আঘাত হানে। এতে ৮৪৫ জনের মৃত্যু হয়। আহত হন আরও প্রায় ৫ হাজার মানুষ।