রাত ৩:৫৮, ১৬ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম:







চলন্ত বাসে ডাকাতি-ধর্ষণের ঘটনায় মূলহোতা গ্রেফতার

বঙ্গবন্ধু সেতু পার হওয়ার পর ঢাকামুখী একটি নৈশকোচে যাত্রীদের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ডাকাতি এবং এক যাত্রীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলায় মূলহোতাকে গ্রেফতার করেছে ডিবি পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) সকালে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত ডাকাত সদস্যের নাম রাজা মিয়া (৩২)।

পুলিশ জানায়, গ্রেফতারকৃত রাজা মিয়া পেশাগতভাবে একজন ড্রাইভার। সে কালিহাতী উপজেলার মৃত হারুন অর রশিদের ছেলে। রাজা দীর্ঘদিন ধরে টাঙ্গাইল থেকে চন্দ্রামুখী ঝটিকা পরিবহনের ড্রাইভার হিসেবে কর্মরত আছে। রাজা ডাকাতির ঘটনায় মূল হোতা বলেও জানায় পুলিশ।

জানা যায়, কুষ্টিয়া থেকে যাত্রী নিয়ে চট্টগ্রাম যাচ্ছিল বাসটি। বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিমপাড়ে পৌঁছালে এতে ১০-১২ জন যাত্রী ওঠেন। যাত্রীবেশে ওঠা এই যাত্রীরা বাসটির নিয়ন্ত্রণ নিয়ে বাকি যাত্রীদের জিম্মি করে ফেলে। হাত-মুখ ও চোখ বেঁধে অস্ত্রের মুখে টানা তিন ঘণ্টা জিম্মি করে রাখা হয় যাত্রীদের। এই পুরো সময় বাসটি চলন্ত অবস্থায় ছিল। এর মধ্যেই চলে ডাকাতি ও ধর্ষণ। মধুপুরের কাছে এসে বাসটি দুর্ঘটনার শিকার হলে স্থানীয়রা এসে যাত্রীদের উদ্ধার করেন।

এ ব্যাপারে মধুপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মাজহারুল আমিন বলেন, ‘ঘটনাটি তদন্তাধীন। বাসের এক যাত্রী বাদী হয়ে অজ্ঞাত ব্যক্তিদের আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেছেন। ধর্ষণের শিকার ওই নারীকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য তাকে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হবে। বিষয়টি সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে দেখা হচ্ছে।