সন্ধ্যা ৭:৩২, ২১শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ







ড. তাজমেরী ইসলামকে নিঃশর্ত মুক্তির দাবি ইবি জিয়া পরিষদের

ইবি প্রতিনিধি: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রসায়ন বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক ও বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. তাজমেরী এস এ ইসলামকে গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ জানিয়েছে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) জিয়া পরিষদ। একইসাথে তার বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার এবং তাঁকে নিঃশর্ত মুক্তি দাবি জানিয়েছে তারা।

শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) পরিষদের সভাপতি প্রফেসর ড. তোজাম্মেল হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর ড. ইদ্রিস আলী স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ নিন্দা জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে ইবি জিয়া পরিষদের নেতৃবৃন্দ বলেন, অধ্যাপক ড. তাজমেরী ইসলাম একজন খ্যাতিমান শিক্ষক, নির্মোহ গবেষক এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনাকালীন সময়ে বিভাগের চেয়ারম্যান, হলের প্রভোস্ট, শিক্ষক সমিতির সভাপতি, সিনেট সদস্যসহ বহুবিধ দায়িত্ব অত্যন্ত দক্ষতা ও যোগ্যতার সাথে পালন করেছেন।

বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক আন্দোলন সংগ্রামের সূতীকাগার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন সচেতন শিক্ষক হিসেবে দেশ ও জাতির স্বার্থে তিনি বাংলাদেশী জাতীয়তাবাদ প্রতিষ্ঠা এবং গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে কাজ করে চলেছেন। বর্তমানে তিনি ৭৫ বছরের একজন বৃদ্ধা। দেশের অতীব গুরুত্বপূর্ণ ও সিনিয়র নাগরিককে মিথ্যা ও বানোয়াট মামলায় এভাবে গ্রেপ্তার ও কারাগারে প্রেরণ খুবই অশোভন ও গণতান্ত্রিক আন্দোলনের প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শনের নামান্তর। সরকারের এহেন বিদ্বেষপূর্ণ, অগণতান্ত্রিক ও অমানবিক কার্যক্রম শিক্ষক সমাজ, সুশীল সমাজ ও দেশবাসী কখনোই মেনে নিতে পারে না।

আমরা অধ্যাপক তাজমেরি ইসলামের মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার এবং তাঁর নিঃশর্ত মুক্তি দাবি করছি।